উন্নয়ন মেলায় হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি ‘শ্রেষ্ঠ সেবা দানকারী প্রতিষ্ঠান’

0
92

৫ উপজেলায় শতভাগ বিদ্যুতায়িত
মোঃ মামুন চৌধুরী, হবিগঞ্জ : ‘উন্নয়নের অভিযাত্রায়, অদম্য বাংলাদেশ’ এই প্রতিপাদ্যে ৪র্থ জাতীয় উন্নয়ন মেলা-২০১৮ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৪ থেকে ৬ অক্টোবর তিন দিনব্যাপী হবিগঞ্জ জেলা সদর ও জেলার ৭টি উপজেলায় একযোগে চলে। এ মেলায় হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি জেলা সদরসহ ৭টি উপজেলায় পৃথক পৃথক মোট ৮টি  স্টল স্থাপন করে। মেলায় হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির স্থাপিত প্রতিটি স্টল ছিল অত্যন্ত দৃষ্টি নন্দিত, তথ্যবহুল ও আকর্ষণীয়। ব্যাপক জনসমাগমসহ হবিগঞ্জ পবিস কর্তৃক প্রদর্শিত ও পরিচালিত কার্যক্রম আগত দর্শনার্থীদের দ্বারা প্রশংসিত হয়। বিশেষ করে গ্রাহকগণ সেবা প্রাপ্তির পর উচ্ছসিত হয়ে হবিগঞ্জ পবিসের ভূয়সি প্রশংসা করেন। হবিগঞ্জ পবিস কর্তৃক জানা যায়- হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি মেলায় অংশ গ্রহনের পূর্ববর্তী প্রস্তুতি  হিসেবে স্থানীয় পত্রিকায় এবং ক্যাবল টিভি অপারেটরের স্ক্রলে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে। প্রচারণার অংশ হিসেবে মাইকিং করা, দুই লাখ লিফলেট বিতরণ এবং সকল গ্রাহককে এসএমএস প্রেরণ করা হয়।
মেলা চলাকালীন সময়ে হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি অনলাইনে সংযোগ আবেদন গ্রহণ ও স্পট মিটারিং, স্টলে অভিযোগ গ্রহণ ও তাৎক্ষনিক নিরসন-সমাধান, সকল সংযোগ সংক্রান্ত পরামর্শ, নিরাপদ ও সাশ্রয়ী বিদ্যুৎ ব্যবহারের পরামর্শ প্রদান, বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরী কমিশন কর্তৃক অনুমোদিত বিদ্যুৎ বিলের রেট সংক্রান্ত তথ্য প্রদান করা হয়েছে। মেলা চলাকালীন সময়ে এসএমএস এর মাধ্যমে বিদ্যুৎ বিল গ্রহণসহ বাস্তবধর্মী সেবা প্রদান করে ব্যাপক প্রশংসার অর্জন করে।
এগুলোর মধ্যে অনলাইনে সংযোগ আবেদন গ্রহণ হবিগঞ্জ সদরে ৭২৩টি, বাহুবলে ৮৫০টি, লাখাই ১৬২টি, আজমিরীগঞ্জ ১৩১টি, বানিয়াচং ৩৬৩টি, নবীগঞ্জ ৭৩৭টি, চুনারুঘাট ৩০৮টি ও মাধবপুরে ৯১০টিসহ মোট ৪১৮৪টি আবেদনের প্রেক্ষিতে তাৎক্ষণিক স্পট মিটারিং এর মাধ্যমে মেলার শেষ দিন পর্যন্ত ৩৯৬০টি নতুন সংযোগ প্রদান করা হয়। তাৎক্ষণিক সেবা পেয়ে সেবা গ্রহণকারীরা হাসি মুখে বিদ্যুতের আলো নিয়ে বাড়ি ফিরেন।
তাছাড়াও বর্তমান সরকারের উন্ননের চিত্র মেলার দর্শনাথীদের মধ্যে তুলে ধরার জন্য অত্র পবিস এবং বিআরইবি এর তথ্য ভিত্তিক ভিডিও ক্লিপ, ১০,০০০ বুকলেট, ২৫০০ স্টিকার এবং ফেস্টুন প্রস্তুত ও মেলা চলাকালীন সময়ে জনসম্মুখে উপস্থাপন ও বিতরণ করা হয়।
তিন দিনের মেলায় সার্বিক বিবেচনায় ও সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে প্রশাসন কর্তৃক হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিকে শ্রেষ্ঠ সেবা দানকারী প্রতিষ্ঠানের সম্মানে ভূষিত করা হয়।
উল্লেখ থাকে যে, হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি ৮ উপজেলায় অংশগ্রহণ করে হবিগঞ্জ জেলা সদরসহ  লাখাই, চুনারুঘাট ও মাধবপুরে প্রথম স্থান অর্জন করে। বানিয়াচং, আজমিরীগঞ্জ,  নবীগঞ্জে দ্বিতীয় স্থান ও বাহুবল উপজেলায় শান্তনা পুরস্কার লাভ করেছে।
উন্নয়ন মেলার সমাপনীতে এমপি আলহাজ্ব অ্যাডভোকেট মোঃ আবু জাহির ও জেলা প্রশাসক মাহমুদুল কবীর মুরাদের কাছ থেকে ‘শ্রেষ্ঠ সেবা দানকারী প্রতিষ্ঠান’ এর সম্মাননা গ্রহণ করেন হপবিস জেনারেল ম্যানেজার মোঃ ছোলায়মান মিয়া।
হপবিস এর এজিএম (সদস্য সেবা) মোহাম্মদ শামিউল আশরাফ বলেন- আমরা উন্নয়ন মেলায় অংশগ্রহণ করে তৃণমূলে সেবা প্রদান করেছি। গ্রাহকরা সেবা পেয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।
এজিএম(প্রশাসন) এফএম সাইদুর রহমান বলেন- হাওর, পাহাড় ও গ্রামে গ্রামে বিদ্যুৎ পৌঁছে গেছে। গ্রাহকরা আমাদের প্রাণ। গ্রাহক সেবায় নিয়োজিত রয়েছি।
হপবিস জেনারেল ম্যানেজার মোঃ ছোলায়মান মিয়া বলেন- উন্নয়ন মেলায় অংশগ্রহণ করে তৃণমূল লোকজনের মাঝে সেবা প্রদান করেছি। সেরা সম্মাননা পাওয়ায় আনন্দিত। তিনি বলেন- হবিগঞ্জ সদর, শায়েস্তাগঞ্জ, বাহুবল, লাখাই ও আজমিরীগঞ্জ ইতোমধ্যেই শতভাগ বিদ্যুতায়িত উপজেলা হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে।

Share on Facebook

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here