মাটি পরীক্ষা করতেই ৫৯ কোটি টাকা

0
48

নিজস্ব প্রতিবেদক: উন্নয়ন সহযোগীদের প্রদত্ত আর্থিক সহযোগিতার উল্লেখযোগ্য অংশই যে বিদেশেই চলে যায়, বিশেষজ্ঞদের পরামর্শের নামে ব্যয় করতে হয় তার সর্বশেষ প্রমান পাওয়া যায় বিশ্ব ব্যাংকের একটি ঋণ প্রকল্পে।
ঢাকা শহরে কনসালটেন্সি সার্ভিসেস ফর ডেভেলপমেন্ট অব রিস্ক সেনসেটিভ ল্যান্ড ইউস প্লানিং প্র্যাকটিস ফর আরবান রেসিলিয়েন্স ইউনিট” শীর্ষক প্রকল্প নেয়া হয়েছে। ঢাকা শহরের মাটির ধরন, প্রকৃতি, কোন কোন জায়গা বহুতল ভবন, স্থাপনা নির্মাণের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ এবং উপযোগী তা বিস্তারিত পরীক্ষা করতে বিদেশি বিশেষজ্ঞ নিয়োগ করা হবে। জেলা ও উপজেলা শহরে বহুতল ভবন নির্মাণের পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। জেলা, উপজেলা পর্যায়ে বিদেশি বিশেষজ্ঞদের দিয়ে মাটি পরীক্ষা করা হবে। রাজউক কর্তৃপক্ষ এবং গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় এতে আপত্তি জানিয়েছিল। তাদের মতে দেশিয় বিশেষজ্ঞরা, বিশেষ করে প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপকদের দিয়েই এ কাজ করা সম্ভব। বিভিন্ন সময়ে তাদের দিয়ে এ ধরনের কাজ করানোও হয়েছে। কিন্তু তাদের আপত্তি টিকেনি। এ কাজের জন্য কনসালটেন্ট নিয়োগ করা হয়েছে। এজন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহবান করা হয়। যুক্তরাজ্য, ইতালী, স্পেন, তুরস্ক, ইরান ও জাপানের প্রতিষ্ঠান এতে অংশ নেয়। সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে এন.কে.ওয়াই আর্কিট্যাকটস এন্ড ইঞ্জিনিয়ার্স নামক তুরস্কের একটি ফার্মকে বেছে নেয়া হয়। দাতা সংস্থা বিশ্বব্যংকের মতামতের ভিত্তিতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এতে ব্যয় হবে স্থানীয় মুদ্রায় ৩ কোটি ২৭ লাখ টাকা এবং বৈদেশিক মুদ্রায় ৫৯ কোটি ২০ লাখ টাকা। স্থানীয় মুদ্রার সংস্থান করবে সরকার। বৈদেশিক মুদ্রার যোগান দেবে বিশ্বব্যাংক। ২০২০ সাল পর্যন্ত চল্লিশ জন বিদেশি বিশেষজ্ঞ এখানে অবস্থান করবেন। বেতন, ভাতা, বাড়িভাড়া, গাড়িক্রয় ছাড়াও কিছু যন্ত্রপাতি কেনা বাবদ এ অর্থ ব্যয় হবে। মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা এর বিপক্ষে মত দিয়েছিলেন যে, স্থানীয় আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন বিশেষজ্ঞদের দিয়ে এ কাজ সম্পাদন করা হলে মোট ব্যয় হতো বড় জোর ৫ কোটি টাকা। কিন্তু বিশ্বব্যাংকের প্রস্তাব প্রত্যাখান করা সম্ভব হয়নি। বিশ্বব্যাংক ঢাকা শহরের সংলগ্ন এলাকায় চারটি উপশহর গড়ে তুলতে চার হাজার কোটি টাকা দেয়ার আশ্বাস দিয়েছে। কয়েকশত বহুতল ভবন নির্মাণে তারা অর্থায়ন করবে। এই লোভেই সরকার জরুরি নয় জেনেও বিদেশি বিশেষজ্ঞদের পিছনে এ অর্থ ব্যয় করছে।

Share on Facebook

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here