‘সব কিছু ঠিক থাকলে আমার কোন আপত্তি নেই’

0
168

বিনোদন ডেস্ক : ‘এ জীবন তোমার আমার’ ছবি দিয়েই চলচ্চিত্রে নিজের ক্যারিয়ার শুরু করেন চিত্রনায়িকা পূর্ণিমার। বিশ বছরের ক্যারিয়ারে অসংখ্য ব্যবসা সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন। অনবদ্য অভিনয়ের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারও নিজের ঝুলিতে নিয়েছেন এই অভিনেত্রী। এরপর বিয়ে ও সংসার নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েন। দীর্ঘদিন সিনেমার বাইরে ছিলেন। কোনো চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায় নি। যদিও গত দু-এক বছর ধরে আবারো পর্দায় হাজির হয়েছেন। তবে কোনো ছবিতে নয়, নাটকে কিংবা উপস্থাপনায় ব্যস্ত সময় পার করছেন আলোচিত এ নায়িকা। নাটকে আর উপস্থাপনার কাজের ফাঁকেই বারবারই প্রশ্নের সম্মুখীন হয়েছেন এ নায়িকা। কবে স্বরুপে ফিরছেন তিনি? সবশেষ জানা যায়, আরফিন শুভর বিপরীতে জ্যাম-এ অভিনয় করবেন এ অভিনেত্রী। গত বছরের ডিসেম্বরে এফডিসিতে ‘জ্যাম’ ছবির বিশাল সেট ফেলা হয়। সেটটি দেখে অনেক নির্মাতা বেশ প্রশংসা করেছেন। ঢাকা শহরের রাস্তার জ্যাম তুলে ধরার জন্যই মূলত এই সেটটি বানানো। ‘জ্যাম’-এর শুটিং করতে বাস, ট্রাক, প্রাইভেট কার, সিএনজি চালিত অটোরিকশার সমন্বয়ে একটি ব্যতিক্রমী আয়োজন করেন নির্মাতা। সেই শুটিংয়ে অংশ নেন পূর্ণিমা। অনেকদিন পর চলচ্চিত্রের কাজে ফিরেছেন তিনি। বর্তমানে নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামূলের নির্দেশনায় ‘জ্যাম’ ছবির কাজ করছেন। এরপর একই নির্মাতার ‘গাঙচিল’ ছবির কাজ শুরু করবেন তিনি। পূর্ণিমা বলেন, এরইমধ্যে এফডিসিতে ‘জ্যাম’ ছবির বেশকিছু অংশের শুটিং শেষ হয়েছে। কাজটি করে খুব ভালো লাগছে। এ ছবিতে ভালো একটি গল্প রয়েছে। ফেরদৌস, আরিফিন শুভসহ অনেকে এতে কাজ করছেন। কাজ এখনো সাত-আটদিন বাকি। ছবিটি প্রসঙ্গে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘জ্যাম’ কোনো নায়ক বা নায়িকা কেন্দ্রিক না। পুরোটা গল্পনির্ভর ছবি। প্রয়াত জনপ্রিয় নায়ক মান্নার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান কৃতাঞ্জলী কথাচিত্রের ব্যানারে এটি নির্মাণ হচ্ছে। এরইমধ্যে এ ছবির কাজ শেষ করে নেয়ামূলের পরের ছবি ‘গাঙচিল’ এর কাজ শুরু করতে যাচ্ছেন পূর্ণিমা।
‘গাঙচিল’ ছবিতে প্রধান চরিত্রে তিনি ও ফেরদৌস অভিনয় করবেন। নতুন এ ছবির বিষয়ে পূর্ণিমা বলেন, এর কাজ আগামী ৫ই ফেব্রুয়ারি থেকে নোয়াখালিতে শুরু হবে। টানা পাঁচদিন সেখানে শুটিং করব।
এরপর ঢাকা আসতে হবে আমাকে। কারণ আমার মেয়ে আরশিয়া স্কুলে ভর্তি হয়েছে। তার দেখাশুনা করতে হয় এখন। চাইলেও অনেক কাজ একসঙ্গে করতে পারি না এখন। এরইমধ্যে ভালোবাসা দিবসের জন্য নাটক, ওয়েব সিরিজের কাজের প্রস্তাব পেয়েছিলাম। তবে ‘গাঙচিল’ ছবিতে সময় দেয়ার কারণে অন্য কাজ হাতে নেয়া হয়নি এখন। কথার রেশ ধরেই জানতে চাওয়া ওয়েব সিরিজ তো এখন অনেক শিল্পীই কাজ করছেন। আপনি কি ওয়েব সিরিজ নেটফ্লিক্স দেখেছেন? উত্তরে পূর্ণিমা বলেন, না।
আমি এখনো কোনো নির্মাতার পরিচালনায় ওয়েব সিরিজ দেখার সময় পাইনি। তবে ওয়েব সিরিজে কাজ করার ইচ্ছে রয়েছে। ভালো গল্প, বাজেট সব ঠিক থাকলে ওয়েব সিরিজের কাজে আপত্তি নেই আমার। তবে কনটেন্ট বা এর গল্পটা শক্তিশালী হতে হবে।

Share on Facebook

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here