কাশিমপুর কারাগার ‍॥ খোয়া যাওয়া রাইফেলটির সন্ধান মেলেনি ‍॥ তিন কারারক্ষী সাময়িক বরখাস্ত

0
131

গাজীপুর প্রতিনিধি : কাশিমপুর কারাগার থেকে রাইফেল খোয়া যাওয়ার দুই দিন পরও অস্ত্রটির সন্ধান মেলেনি। এদিকে এ ঘটনায় আরও দুই কারারক্ষীকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে কর্তৃপক্ষ। এরা হলেন- কারারক্ষী তৌহিদুল ইসলাম ও এহসানুল হক।  এর আগে একই অভিযোগে কারাগারের অস্ত্রাগারের প্রধান কারারক্ষী মো. সিরাজুল ইসলাম হাওলাদারকেও সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।  কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার মো. মিজানুর রহমান মঙ্গলবার দুপুরে বলেন, “রোববার বিকেলে খোয়া যাওয়া রাইফেলটির সন্ধান আমরা পাইনি। তবে আমাদের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।” ওই ঘটনায় সোমবার রাতেই কারারক্ষী তৌহিদুল ও এহসানুলকে সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেওয়া হয় বলে জানান তিনি।
কারাগারের সুপার  মো. মিজানুর রহমান  জানান, রোববার  বিকেলে অস্ত্রাগারের অস্ত্র গোণার সময় খোয়া যাওয়ার বিষয়টি ধরা পড়ে। অস্ত্রাগারের দায়িত্বে থাকা  প্রধান কারারক্ষী  মো. সিরাজুল ইসলাম  হাওলাদার তাকে রাইফেল  না পাওয়ার বিষয়টি জানান।
কারাগারের অভ্যন্তরে বিভিন্ন স্থানে খুঁজেও অস্ত্রটি না পেয়ে রোববার সন্ধ্যায় তারা বিষয়টি আইজি প্রিজন মো. ইফতেখার উদ্দিনকে জানান এবং সোমবার জয়দেবপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়।
এছাড়া রাজশাহী বিভাগের ডিআইজি মো. বজলুর রহমানকে প্রধান করে চার সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে এই কমিটিকে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।
অতিরিক্ত  জেলা ম্যাজিস্ট্রেটকে প্রধান করে গাজীপুর জেলা প্রশাসনের পক্ষ  থেকে দুই সদস্যের আরেকটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে, যাদের প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে তিন দিনের মধ্যে।
জয়দেবপুর  থানার  ওসি খন্দকার রেজাউল করিম জানান, সোমবার দুপুরে ঘটনা জানার পর পুলিশের পক্ষ থেকেও একটি  জিডি করা হয়। থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আলম চাঁদকে বিষয়টি অনুসন্ধানের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

Share on Facebook

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here