‘বিশ্বজুড়ে বাস্তচ্যুত মানুষের সংখ্যা এখন ছয় কোটি’

0
139

কালবেলা ডেস্ক : যুদ্ধ, সংঘাত এবং নির্যাতনের কারণে ২০১৪ সালের শেষ নাগাদ পৃথিবীজুড়ে বাস্তচ্যুত মানুষের সংখ্যা ছয় কোটিতে পৌঁছেছে বলে জাতিসংঘের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর এই প্রতিবেদনটি তৈরি করেছে। সংস্থাটি বলছে ২০১৩ সালের চেয়ে ২০১৪ বাস্তচ্যুত মানুষের সংখ্যা ৮৩ লাখ বেশি ছিল। এত বিপুল সংখ্যায় মানুষ উদ্বাস্তু হবার পেছনে সিরিয়ার গৃহযুদ্ধকে সবচেয়ে বড় কারণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে । জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থার প্রধান বলেছেন ‘পৃথিবী এখন এক বিশৃঙ্খলার মধ্যে রয়েছে।’ তিনি বলেন ২০১৪ সালে প্রতিদিন চল্লিশ হাজারের বেশি মানুষ উদ্বাস্তু হয়েছে।
শরণার্থী বিষয়ক সংস্থার প্রধান বলেন এত বেশি মানুষ দুর্দশার মধ্যে পড়েছে যে এদের অনেককেই সহায়তা করা সম্ভব নয়। গত পাঁচ বছরে আফ্রিকা এবং মধ্যপ্রাচ্যে অন্তত পনেরটি যুদ্ধ বা সংঘাত তৈরি হয়েছে। এসব কারণে যারা উদ্বাস্তু হয়েছেন তাদের মধ্যে ৫০ শতাংশই শিশু। এসব কারণে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে আশ্রয়প্রার্থীর সংখ্যাও বেড়ে গেছে।
জাতিসংঘের এই প্রতিবেদনের সাথে ইউরোপিয় ইউনিয়নের পরিসংখ্যানের মিল রয়েছে। ইউরোস্ট্যাট এর পরিসংখ্যান অনুযায়ী শুধু জার্মানিতে আশ্রয়ের জন্য আবেদন করেছে প্রায় আড়াই লাখ।
অন্যদিকে সুইডেন, হাঙ্গেরি, ইটালি , ফ্রান্স , অষ্ট্রিয়া ও যুক্তরাজ্যে আশ্রয়ের জন্য আবেদন করেছে আরো প্রায় সাড়ে তিন লাখ মানুষ।
জাতিসংঘের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে সিরিয়ায় অভ্যন্তরীণভাবে বাস্তুচ্যুত হয়েছে প্রায় ৭৬ লাখ মানুষ আর ভিনদেশে উদ্বাস্তু হয়েছে আরো ৪০ লাখ মানুষ।
সিরিয়ার পরে জাতিসংঘ এবং সোমালিয়া থেকে সবচেয়ে বেশি মানুষ উদ্বাস্তু হয়েছে।
ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে ঢোকার বেপরোয়া চেষ্টায় গত এক বছরে অনেকেরই মৃত্যু হয়েছে।

Share on Facebook

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here